Login
ডাটাবেজ ম্যানেজমেন্ট এপ্লিকেশন

ডাটাবেজ ম্যানেজমেন্ট এপ্লিকেশন

ডাটাবেজ  (Database ) অর্থ  তথ্য ভান্ডার যেখানে অনেক তথ্য জমা থাকে । আর যে সফটওয়্যার এর সাহায্যে কোন ডেটা কে সংরক্ষণ করে এবং প্রয়োজন অনুসারে ঐ ডেটা গুলোকে কাজে ব্যবহার  করা যায়, তাকেই ডেটাবেজ সফটওয়্যার বলে। ডাটাবেজ মানে তথ্যভান্ডার। কম্পিউটার আবিষ্কারের আগে স্তুপীকৃত ফাইলে তথ্য সংরক্ষণ করা হতো, এখন ডেটাবেজে তথ্য সংরক্ষণ করা হয়। ডাটাবেজ তৈরীর বিভিন্ন প্রোগ্রাম আছে। একটি ডাটাবেজ তৈরী করার পর সেটাকে প্রায়ই আপডেট করতে হয়। এই আপডেটের কাজ করার জন্যও বিভিন্ন ধরনের প্রোগ্রাম আছে। ডাটাবেজ ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম, ডিবিএমএস, হলো এমন একটি পূর্ণাঙ্গ প্রোগ্রাম যা একই সাথে ডাটাবেজ তৈরী, ব্যবস্থাপনা, তত্ত্ববধান এবং ডাটা প্রসেসের কাজ করে। ডাটাবেজের সাহায্যে ডাটা প্রসেস করে আমরা ঐসব ডাটার প্রকৃতি ও বৈশিষ্ট্য সম্পর্কে জানতে পারি। ডাটাবেজের মুল উদ্দেশ্য হলো, দ্রুত গতিতে ডাটা খোঁজ করা, সবচেয়ে নিরাপদ উপায়ে ডাটা সংরক্ষণ করা ইত্যাদি। ডাটাবেজ ম্যানেজমেন্ট এর জন্য ডাটাবেজ এডমিনরা বিভিন্ন ধরনের DBM সফটওয়্যার ব্যবহার করে থাকে। এখন আমি জনপ্রিয় ৩ টি ডাটাবেজ ম্যানেজমেন্ট সফটওয়্যার নিয়ে আলোচনা করব।

১। পি এইচ পি এডমিন।

ডাটাবেজ ম্যানেজমেন্ট সফটওয়্যার হিসাবে জনপ্রিয়তার দিক দিয়ে পি এইচ পি এডমিন সবচেয়ে এগিয়ে রয়েছে । এটি একটি বহুল ব্যাবহৃত ওপেন সোর্স mysql ম্যানেজার । এটি দিয়ে ডাটাবেজ তৈরি, টেবিল তৈরি, ডাটাবেজ ব্যবহারকারী তৈরি, সম্পাদনা ইত্যাদি কাজ খুব সহজেই করা যায় । এটি ইন্সটল করাও খুবই সহজ । ডিবিএমএস হিসাবে এটি হওয়া উচিত আপনার প্রথম পছন্দ

২। নাভিকাট ফর মাইএসকিউএল।

জনপ্রিয়তার দিক দিয়ে এটি ২য় স্থানে রয়েছে যে ডাটাবেজ ম্যানেজমেন্ট সফটওয়্যার সেটি হল নাভিকাট ফর মাইএসকিউএল। এটি বিভিন্ন ক্রস প্ল্যাটফরমে চলার উপযোগী রিলেশনাল ডাটাবেজ ম্যানেজমেন্ট টুল। এর একটি ভিজুয়াল কোয়েরি বিল্ডার রয়েছে যার সাহায্যে জটিল ডাটাবেজ কোয়েরিগুলো সহজে করা যায় । এছাড়াও ডাটাবেজ এক্সপোর্ট, ইমপোর্ট, ব্যাকআপ সুবিধা রয়েছে । এটি বিশ্বের ২ নম্বার ডাটাবেজ ম্যানেজমেন্ট সফটওয়্যার

৩। এসকিউএল ইয়গ।

জনপ্রিয়তার দিক দিয়ে আরেকটি প্রথম সারির ডাটাবেজ ম্যানেজমেন্ট সফটওয়্যার হল এসকিউএল ইয়গ। এটি একটি ইন্ডিয়ান কোম্পানি দ্বারা ডেভেলপ করা ডাটাবেজ প্রোগ্রাম। প্রফেশনাল ডাটাবেজ এডমিনদের জন্য এটি একটি দারুন টুল । দারুন কিছু ফিচার এর কারনে জনপিয়তার দিক দিয়ে রয়েছে ৩য় স্থানে ।

About the Author

Leave a Reply